বিজয় দিবস আসছে – প্রজন্ম ইতিহাস জানে ইতিহাস কি?

By | November 22, 2016

প্রতিবছর আমরা বিজয় দিবস পানল করি। কিন্তু বিজয় এবং বিজয়ের ইতিহাস এই প্রজন্ম কতটা জানে? ভেবে দেখেঞ্ছেন কি আমাদের পরের প্রজন্ম, যাদের উপর আমরা এই দেশ, এই ভাষা, এই সংস্কৃতি রক্ষার দায়িত্ব দিয়ে যাবো, তারা কতটা জানে এই ইতিহাস?

 

নিজের ঘরের ভাই-বোন অথবা নিজের সন্তানকে আমরা মোটামোটা বই মুখস্ত করিয়ে বিদ্বান বানাতে চাই। মুলত তারা বড় টাকা কামানোর বিদ্বান হচ্ছে। তবে ভালো মানুষ হওয়ার জন্য বিদ্বান হচ্ছে। ভালো মানুষ হওয়ার জন্য অবশ্যই তাকে নিজের শিকড়ের খোজ জানতে হবে, নিজের ইতিহাস এবং নিজের স্ব সংস্কৃতির ব্যাপারে জানতে হবে। নাহলে ভালো মানুষ হতে পারবে না।

১৬ই ডিসেম্বর মহান বিজয় দিবসের ছবি

বিজয় দিবস সম্পর্কে জানতে চাইলে এই প্রজন্ম কি বলতে পারে?

কিছু দিন আগে সোশ্যাল মিডিয়াতে একটা ভিডিও অনেক ভাইরাল হয়েছিল। ভাষা দিবসে চিটাগাং কোন একটা প্রাইভেট বিশ্ববিদ্যালয়ের এক ছাত্রিকে ক্যামেরার স্যামনে জিজ্ঞাসা করা হয়েছিল একুশে ফেব্রুয়ারির পটভূমি কি? তিনি অত্তান্ত হাস্যকর জবাব দিয়ে কেটে পড়লেন। এর থেকে ভয়াবহ কিছু হতে পারে যদি আমরা আমাদের পরবর্তী প্রজন্মকে একুশে ফেব্রুয়ারি এবং ভাষা দিবসের ব্যাপারে সচেতন না করি।

 

আমরা কি করতে পারি প্রজন্মের জন্য?

  • আমাদের স্কুল কলেজ পর্যায় থেকে শুরু করতে হবে। পাঠ্য পুস্তক, সংস্কৃতি এসবে বিজয়ের চেতনা নিয়ে আস্তে হবে।
  • পরিবারেও চেতনায় পরিবর্তন আনতে হবে। খাবার টেবিলের আলোচনা, পারিবারিক অনুস্থান এবং দেখা সাক্ষাতে তাদের কাছে একুশকে তুলে ধরতে হবে।
  • সংবাদপত্র, টেলিভিশনে একুশের অনুষ্ঠান নিমিত প্রচার করতে হবে।

আমরা যদি আমাদের জায়গা থেকে সচেতন না হই তাহলে, খুব অচিরেই আমাদের পরবর্তী প্রজন্ম মা এবং মাটি থেকে আলাদা হবে। তারা বলতেই পারবে না কি ছিল আমাদের বীরত্বে ইতিহাস। আশুন এক সাথে নিজেদের ভবিষ্যৎ করি। ভালো থাকুক বাংলাদেশ। ভালো থাকুক প্রজন্ম।

One thought on “বিজয় দিবস আসছে – প্রজন্ম ইতিহাস জানে ইতিহাস কি?

  1. FaHida

    আমরা যদি আমাদের জায়গা থেকে সচেতন না হই তাহলে, খুব অচিরেই আমাদের পরবর্তী প্রজন্ম মা এবং মাটি থেকে আলাদা হবে। তারা বলতেই পারবে না কি ছিল আমাদের বীরত্বে ইতিহাস।

    Reply

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *